X

Fact Check: প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর ছবি সহ টাইম ম্যাগাজিনের কভারের এই ছবিটি মোর্ফড

উপসংহার: আমাদের তদন্তে এটি স্পষ্ট হয়ে গেছে যে টাইম ম্যাগাজিনের ভাইরাল হওয়া কভার মর্ফড। টাইম ম্যাগাজিন প্রধানমন্ত্রী মোদীর ভাইরাল ছবি কভারে পাবলিশ করে নি।

  • By Vishvas News
  • Updated: মে 13, 2021

নয়াদিল্লি (বিশ্ব নিউজ)। টাইম ম্যাগাজিনের প্রচ্ছদের একটি ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হচ্ছে। এই এই ছবির কভারে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে দেখা গেছে, নীচে ইংরেজিতে লেখা আছে: Superspreader, Will humanity now have to pay for one man’s hunger for power? (সুপারপ্রেডার, মানবতা কি এখন একজন মানুষের ক্ষমতার ক্ষুধার জন্য দাম দেবে) বিশ্বাস নিউজের তদন্তে পাওয়া গেছে যে ভাইরাল পোস্টে দেখা ছবিটি ভুল।

প্রকৃতপক্ষে, টাইম ম্যাগাজিনের কভারটি যা ভাইরাল হচ্ছে তা হ’ল মর্ফড, এটি একটি নকল টাইম ম্যাগাজিনের কভার জেনারেট করা ওয়েবসাইটের সহায়তায় প্রস্তুত করা হয়েছে।

ভাইরাল পোস্টটিতে কি আছে?

ফেসবুক ইউজার Shoukat Ali Khan এই ছবিটি শেয়ার করে ইংরেজিতে একটি ক্যাপশন লিখেছেন, যার হিন্দি অনুবাদ হল: টাইম ম্যাগাজিনের কভারে মোদী। যাইহোক, ছবিতে দেখা যাচ্ছে কভারে প্রধানমন্ত্রী মোদীর ছবির নিচে লেখা একটি টেক্সটের হিন্দি অনুবাদ রয়েছে: সুপারস্পাইডার একজন মানুষের ক্ষমতার ক্ষুধার ক্ষতিপূরণ কি মানবতাকে দিতে হবে?

পোস্টটির আর্কাইভ ভার্সান এখানে দেখা যাবে।

তদন্ত

বিশ্বাস নিউজ ভাইরাল পোস্টে দেখা কভারটির তদন্ত করতে প্রথমেই এটি সম্পর্কে ইন্টারনেটে অনুসন্ধান করেছিল। টাইম ম্যাগাজিন যদি প্রধানমন্ত্রী মোদীকে নিজেদের কভারে এভাবে পাবলিশ করত, তবে ভারতীয় মিডিয়াগুলিতে এ সম্পর্কে কভারেজ থাকত, কিন্তু আমরা এমন কোন মিডিয়া রিপোর্টের সন্ধান পাই নি যেখানে ভাইরাল কভারের উল্লেখ করা আছে।

এর পরে, আমরা টাইম ম্যাগাজিনের ওয়েবসাইটে চেক করেছিলাম, কিন্তু আমরা এখানে ২০২১ সালের সমস্ত সংস্করণের কোনও কভারে প্রধানমন্ত্রী মোদীর ছবিও পাইনি।

আমরা ভাইরাল পোস্টটি খানিকটা জুম করে দেখলাম, তাতে দেখতে পেলাম যে জুলাই 17, 2006 লেখা দেখা যাচ্ছে, যেখানে অন্যদিকে “www.time.com AOL Keyword: TIME” লেখা দেখা যাচ্ছে। যখন আমরা টাইম ম্যাগাজিনের আর্কাইভ ভালো করে দেখলাম তখন আমরা 17ই জুলাই 2006 এর কভার পেজটি পাই। তবে এই পেজে প্রধানমন্ত্রী মোদীর ছবি না থাকলেও একটি বড় টুপির ছবি পাওয়া গেছে এবং কভার স্টোরির টাইটেল “দ্য অ্যান্ড অফ কাউবয় ডিপ্লোমাসি” লেখা পাওয়া যায়।  

আমরা যখন ইন্টারনেটে টাইম কভার অনুসন্ধান করি, তখন আমরা KAPWING নামে একটি ওয়েবসাইট পাই যার মাধ্যমে ভাইরাল কভারটি প্রস্তুত করা হয়েছিল। এতে আমরা পিএম মোদির ছবি ছাড়াই হুবহু সেই টাইম কভার পেয়েছি, যার টপে একদিকে 17ই জুলাই 2006 এবং অন্যদিকে www.time.com AOL Keyword: TIME লেখা ছিল। সুতরাং এটি স্পষ্ট যে এই ওয়েবসাইটটির সহায়তায় ভাইরাল কভার তৈরি করা হয়েছিল।

আরও তথ্যের জন্য, আমরা টাইম ম্যাগাজিনের ভাইস প্রেসিডেন্ট (কম্যুকেশনস) ক্রিস্টিন ম্যাটজেনের সাথে ইমেলের মাধ্যমে যোগাযোগ করে ভাইরাল কভারটির একটি ছবি তাকে পাঠাই। একটি ইমেলের জবাবে তিনি বলেছিলেন যে ভাইরাল প্রচ্ছদটি অথেন্টিক নয়, এ জাতীয় কোনও কভার এখনও রিলিজ করা হয়নি।

আমরা ভাইরাল কভার পেজে দেখা পিএম মোদির ছবি ক্রপ করে গুগল রিভার্স ইমেজ সার্চের সাহায্যে অনুসন্ধান করে দেখতে পেলাম যে এএনআইয়ের একটি টুইটে এই ছবিটি পাওয়া গেছে।2021 সালের শে ফেব্রুয়ারির এই টুইট অনুসারে, এই ছবিটি প্রধানমন্ত্রীর পুডুচেরির একটি র‍্যালির সময়ের। এই ছবিটি পিটিআইয়ের আর্কাইভগুলোতেও রয়েছে। এটি পিটিআইয়ের ফটোগ্রাফার আর সেন্থিল কুমার ক্লিক করেছিলেন।

এখন সময় হল ফেসবুকে পোস্টটি শেয়ার করা ইউজার Shoukat Ali Khan এর প্রোফাইল স্ক্যান করার। প্রোফাইলটি স্ক্যান করার পরে আমরা জানতে পারি যে ইউজার 2011 সালের জুনে ফেসবুকে তার অ্যাকাউন্ট তৈরি করেছিলেন এবং তিনি ফেসবুকে বেশ অ্যাক্টিভ।

निष्कर्ष: উপসংহার: আমাদের তদন্তে এটি স্পষ্ট হয়ে গেছে যে টাইম ম্যাগাজিনের ভাইরাল হওয়া কভার মর্ফড। টাইম ম্যাগাজিন প্রধানমন্ত্রী মোদীর ভাইরাল ছবি কভারে পাবলিশ করে নি।

  • Claim Review : Modi on the front cover of TIMES magazine.
  • Claimed By : Shoukat Ali Khan
  • Fact Check : False
False
Symbols that define nature of fake news
  • True
  • Misleading
  • False

Know the truth! If you have any doubts about any information or a rumor, do let us know!

Knowing the truth is your right. If you feel any information is doubtful and it can impact the society or nation, send it to us by any of the sources mentioned below.

ট্যাগ

Post your suggestion

আরও পড়ুন

No more pages to load

সম্পর্কিত আর্টিকেলস

Next pageNext pageNext page

Post saved! You can read it later